Kobi

তারাশঙ্কর বন্দোপাধ্যায় কিংবা হুমায়ুন আহমেদের ‘কবি’ নয়। হাসিবুর রেজা কল্লোলের ‘কবি’ হয়ে আসছেন শাকিব খান। আগামী মার্চে শুটিং শুরু হবে ছবিটির।

‘কবি’র গল্প একজন কবির জার্নির—নিজের প্রতি, দেশের প্রতি ও প্রেমিকার প্রতি দায়বদ্ধতার। কল্লোল বললেন, ‘এক কথায় এটিকে প্রেম ও দ্রোহের গল্প বলতে পারেন।’

কোন উপন্যাস থেকে অনুপ্রাণিত না ছবির গল্প। এটি সম্পূর্ণই হাসিবুর রেজা কল্লোলের লেখা। চিত্রনাট্য করছেন আসাদ জামান।

‘কবি’তে অভিনয় না শুধু প্রযোজনাও করবেন শাকিব খান। তার প্রযোজনা সংস্থা এসকে ফিল্মসের ব্যানারে এটি নির্মিত হবে। কল্লোলের ভাষ্যে, ‘ছবির গল্প শুনেই শাকিব এ ছবির প্রযোজক হতে আগ্রহ প্রকাশ করে।’

২০১৭ সালে ‘সত্তা’ মুক্তি দেওয়ার পর আর কোন ছবি বানাননি কল্লোল। এ নিয়ে ব্যাখাও দিলেন তিনি, ‘আমি মূলত সংবাদকর্মী। নিয়মিত চলচ্চিত্র বানানোর লোক না। যারা পেশাদার প্রযোজক তারা আমাকে দিয়ে ছবি বানাবেও না। আর আমারও তাদের সাথে কাজ করা হবে না।’

‘এর আগে একটা ছবির ঘোষণা দিয়েছিলাম। কিন্তু ওই প্রযোজকের সাথে কথা বলে আমার মনে হয়েছিলো আমি যেভাবে স্বাধীনভাবে কাজ করতে চাই তা তারা আমাকে দিবে না। অথচ শাকিব আমাকে এ ছবিতে পুরো স্বাধীনতা দিয়েছে। সবকিছু আমি যেভাবে খুশি সাজাতে পারবো।’

কেনো বা শাকিবকে? উত্তরে কল্লোল বললেন, শাকিবকে আমরা এখনও আমি করে সঠিকভাবে ব্যবহার করতে পারিনি। ওর যা প্রতিভা তার হয়তো পাঁচ শতাংশ এখন পর্যন্ত পেয়েছি আমরা। এমনকি বলবো কলকাতায় ‘শিকারি’ তেও মাত্র দশ শতাংশ ব্যবহার করা হয়েছে।’

নায়িকার ক্ষেত্রে আগের ছবি ‘সত্তা’র মতো বিদেশি নায়িকা নয়, দেশি নায়িকাতে ভরসা রাখতে চান তিনি। তবে নায়িকার নামটি এখনই প্রকাশ্যে আনতে চান না।

শাকিব খানের ছবি ইদানিংকালে বড় উৎসব ব্যাতীত মুক্তি দিতে চান না প্রযোজকরা। তবে কল্লোল জানালেন, এ ছবিকে তা্রা কোন বিশেষ ঘরানার বা বিশেষ দিনের ছবি হিসেবে দেখতে চান না। এটা যেদিন মুক্তি দিবেন সেদিনই উৎসবের দিন হোক, সেটা তারা চান।